বাংলাদেশ | রবিবার, সেপ্টেম্বর ২৪, ২০১৭ | ৮ আশ্বিন,১৪২৪

রাজধানী

04-12-2016 10:26:17 PM

সংসদে হঠাৎ বিকট শব্দ, আতঙ্কে ছোটাছুটি

newsImg

সংসদের ত্রয়োদশ অধিবেশনের কার্যক্রম চলছিল। সংসদে একাত্তর বিধিতে দেওয়া জরুরি জন গুরুত্বপূর্ণ বিষয়ে দেওয়া নোটিশের নিষ্পত্তি চলছিল। সাংবাদিক লাউঞ্জে রিপোর্টাররা রিপোর্ট লেখায় ব্যস্ত। তখন রাত ৭ টা। কিছুক্ষণ আগে মাত্র প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সংসদ থেকে বেরিয়ে গেছেন। এসময় হঠাৎ প্রথমে ধুম করে একটি বিকট শব্দ হয়। তারপর অসংখ্য আওয়াজ। এরপর আবার ধুম ধুম করে ধারাবাহিকভাবে বিকট আওয়াজ চলতে থাকে। শব্দে সংসদ ভবনে দায়িত্ব পালনরত পুলিশসহ কর্মকর্তা-কর্মচারীদের মধ্যে আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে। এক পুলিশ সদস্য দৌঁড়ে এসে বলেন, ভাই গুলাগুলি  হচ্ছে। আরেকজন বলেন বাইরে আগুণ জ্বলছে। এসময় চারিদিকে দৌঁড়াদৌঁড়ি শুরু হয়ে যায়। তবে অধিবেশন যথারীতি চলতে থাকে। এসময় ডেপুটি স্পিকার ফজলে রাব্বি মিয়া ছিলেন নিজ কক্ষে। তিনিও রুম থেকে বেরিয়ে এসে জানতে চান কিসের শব্দ হচ্ছে। পরে জানা গেল, এগুলো আতশবাজির শব্দ।ডেপুটি স্পিকার জাতীয় সংসদের সার্জেট অ্যাটআর্মসকে ডেকে জানতে চান- সংসদ অধিবেশন চলাকালিন এ ধরণের ঘটনা কেনো ঘটানো হলো। জবাবে ডেপুটি সার্জেট অ্যার্ট আমস জানান, স্পিকারের অনুমতি রয়েছে। ঘটনা কি ঘটেছিল জানতে চাইলে তিনি বলেন, বিদ্যুত উৎপাদনের লক্ষ্যমাত্রা ১৫ হাজার মেগাওয়াট অর্জন করার সাফল্য উদযাপনের লক্ষে আগামী ৭ ডিসেম্বর একটি  উৎসব করা হবে। সেদিন আতশবাজি উৎসব হবে। তারই অংশ হিসেবে সংসদের দক্ষিণ প্লাজায় আতশবাজি ফুটানোর মহড়া চলছে। এর আগে সংসদ ভবন থেকে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বের হয়ে যান। ডেপুটি সার্জেট অ্যার্ট আমস সদরুল আহমেদ খান সাংবাদিকদের জানান, বিদ্যুত বিভাগের পক্ষ থেকে সাফল্যের জন্য একটি উৎসবের আয়োজন করা হয়েছে। বসুন্ধরা কনভেনশন সেন্টারে মূল অনুষ্ঠান হবে। আতশবাজি হবে সংসদ ভবনের দক্ষিন প্লাজায়। সংসদ চলাকালীন বিস্ফোরক দ্রব্য বহন ও আতশবাজী নিষিদ্ধ থাকায় এজন্য বিশেষ অনুমোদন নেওয়া হয়েছে। তারই অংশ হিসেবে এ মহড়া। এর আগে ঘটনার সত্যতা খুঁজতে বাইরে গিয়ে দেখে যায় চারিদিকে উৎসুক লোকজন জড়ো হয়ে গেছে। সংসদের ভিতরে নিরাপত্তার দায়িত্বরত এক কর্মকর্তা নাম প্রকাশ না করার শর্তে বলেন, ‘ভাই অনেকে নামাজ শেষ না করেই দৌঁড়াতে থাকেন। একজন আরেক জনের সাথে বলাবলি করতে থাকেন গুলাগুলি হচ্ছে।

খবরটি সংগ্রহ করেনঃ- আই-নিউজ২৪.কম
এই খবরটি মোট ( 212 ) বার পড়া হয়েছে।
add

Share This With Your Friends